Categories: কলকাতা সু-স্বাস্থ্য

সুপারবাগের দাক্ষিণ্যে ভারতের হাসপাতাল ও নার্সিংহোমগুলোর আই সি ইউ এবং আই সি সি ইউতে বাড়ছে মৃত্যুহার

হীরক মুখোপাধ্যায় (৮ জুন ‘১৯):- ‘সুপারবাগ’-এর কবলে ভারত। আর এই ‘সুপারবাগ’-এর দাক্ষিণ্যে চিকিৎসকদের একাংশের সমস্ত চেষ্টা সত্ত্বেও বেশিরভাগ সময় যে কোনো হাসপাতাল বা নার্সিংহোমের ইন্টেনসিভ কেয়ার ইউনিট (আই সি ইউ) বা ইন্টেনসিভ করোনারি কেয়ার ইউনিট (আই সি সি ইউ) থেকে রোগী আর বেঁচে ফিরছেননা।

সাম্প্রতিক অতীতে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা থেকে এই বিষয়ে ভারত সরকারকে সতর্কও করে দেওয়া হয়েছে। সাধারণ জনগণের সচেতনতার স্বার্থে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা, ভারত সরকার ও বিভিন্ন সমাজসেবী সংগঠন ইতিমধ্যে একযোগে এই বিষয়ে প্রচারও শুরু করে দিয়েছে।

এ বিষয়ে পশ্চিমবঙ্গের স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রক থেকে জানানো হয়েছে, ” ‘সুপারবাগ’ জনিত মৃত্যু বৃদ্ধির পেছনে চিকিৎসকদের অজ্ঞতার থেকেও বেশি দায়ী সাধারণ মানুষের অজ্ঞতা।
সাধারণ মানুষ আজ অসুখ হলে অনেকক্ষেত্রেই প্রথমাবস্থায় চিকিৎসকের কাছে না গিয়ে নিজেদের খেয়াল খুশি মতো ওষুধের দোকান থেকে এন্টিবায়োটিক ওষুধ কিনে খাচ্ছেন। ওষুধ খেয়ে অসুখ একটু প্রশমিত হলেই ওষুধের নির্ধারিত মাত্রা না খেয়েই এন্টিবায়োটিক নেওয়া বন্ধ করছেন। ক্ষেত্রবিশেষে এটাই মহাকাল হয়ে দাঁড়াচ্ছে রোগী ও তাঁর পরিবারের কাছে।”

পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রকের সাথে যুক্ত বিভিন্ন চিকিৎসকদের বক্তব্য অনুযায়ী, “আগে জটিল পরিস্থিতিতে কোনো রোগীকে আই সি ইউ-তে পাঠালে অনেকক্ষেত্রেই পাশের রোগীর থেকে নতুন রোগীর দেহে বা নতুন রোগীর দেহ থেকে পুরনো রোগীর দেহে বিবিধ সংক্রমণ হলে আমরা নির্ধারিত মাত্রায় এন্টিবায়োটিক প্রয়োগ করে রোগীকে সুস্থ করে তুলতে পারতাম। এখন ‘সুপারবাগ’-এর কল্যাণে বেশিরভাগ ক্ষেত্রেই আমরা পরাজিত হচ্ছি। বাড়ছে আই সি ইউ-তে মৃত্যুহার।”

চিকিৎসকদের বক্তব্য অনুযায়ী, “যে কোনো মৃত্যুর একটা অন্যতম প্রধান কারণ নিউমোনিয়া বা ফুসফুসে সর্দি জমে যাওয়া। আগে এই ধরণের ক্ষেত্রে বা আই সি ইউ থেকে অন্য সংক্রমণের ক্ষেত্রে আমরা এন্টিবায়োটিক দিয়ে চটজলদি সাফল্য পেলেও এখন রোগীর শরীর আগে থেকেই অনিয়ন্ত্রিত এন্টিবায়োটিক নেওয়ার ফলে মাল্টি ড্রাগ রেজিস্ট্রান্স বা তারও পরবর্তী স্তরের এক্স ডি আর পর্যায়ে চলে যাচ্ছে ফলতঃ কোনো এন্টিবায়োটিক আর কাজ করছেনা।
এর পাশাপাশি রয়েছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা কর্তৃক উল্লিখিত ‘সুপারবাগ’।”

এখন অনেকের মনেই প্রশ্ন ওঠা স্বাভাবিক, এই ‘সুপারবাগ’ আবার কি ?
‘সুপারবাগ’ হলো এন্টিবায়োটিক প্রতিরোধী ব্যাকটেরিয়াদের মধ্যে সবচেয়ে ভয়ঙ্কর প্রজাতি যার উপর কোনো এন্টিবায়োটিকই কাজ করেনা।

  • পশ্চিমবঙ্গ রাজ্য সরকারের স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ মন্ত্রক থেকে তাই চিকিৎসকের লিখিত পরামর্শ ছাড়া সাধারণ জনগণকে নিজেদের খেয়াল খুশি মতো অনিয়ন্ত্রিত এন্টিবায়োটিক নিতে নিষেধ করা হয়েছে।
Share

Recent Posts

সেলুলার জেল

অর্পিতা সিনহা,বাঁকুড়া(১২ ডিসেম্বর ): কলকাতা থেকে ১২৫৫ কিলোমিটার দূরে অবস্থিত অদ্ভুত শান্ত দ্বীপ আন্দামান নিকোবর দ্বীপপুঞ্জ । বঙ্গোপসাগরের নিকটবর্তী এই… Read More

9 hours ago

মানুষের জীবনে বন্ধু অপরিহার্য

অর্পিতা সিনহা,বাঁকুড়া(১১ ডিসেম্বর ): বন্ধুত্ব এই কথাটি বলতে গেলে প্রথমেই বলতে হয় ওয়াল্টার উইনচেলের বিখ্যাত উক্তির কথা।তিনি বলেছেন প্রকৃত বন্ধু… Read More

21 hours ago

শীতঘুম প্রাণীজগতের এক আশ্চর্য বিস্ময়

সঞ্চিতা সিনহা (১১ ডিসেম্বর ): পূর্ব গগনে সূর্যের আলো ধীরে ধীরে ফুটে উঠল। উত্তর দিক থেকে হিমগর্ভ ঠান্ডা বাতাস এসে… Read More

21 hours ago

সংশোধনাগার সমূহের নির্দেশক ১০ টা নতুন ফাঁসির দড়ির বরাত দিয়েছেন : বিজয়কুমার অরোরা

হীরক মুখোপাধ্যায় (১০ ডিসেম্বর '১৯):- "সংশোধনাগার সমূহের নির্দেশক ১৪ ডিসেম্বরের মধ্যে আমাদের ১০ টা নতুন ফাঁসির দড়ি তৈরী করে দেওয়ার… Read More

2 days ago

বিশ্বের নবীনতম প্রধানমন্ত্রী রূপে আগামীকাল শপথ নিতে চলেছেন সানা মারিন

হীরক মুখোপাধ্যায় (৯ ডিসেম্বর '১৯):- বিশ্বের নবীনতম প্রধানমন্ত্রী রূপে আগামীকাল শপথ নিতে চলেছেন সানা মারিন (৩৪)। এতদিন পর্যন্ত বিশ্বের নবীনতম… Read More

3 days ago

চাকরি সংক্রান্ত বিষয়ে সরকারের মুখাপেক্ষী থাকতে থাকতেই সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত হলেন মহুয়া চক্রবর্তী

হীরক মুখোপাধ্যায় (৭ ডিসেম্বর '১৯):- নিজের অক্জিলারি নার্স মিডওয়াইফ(আর)-এর চাকরি সংক্রান্ত বিষয়ে সরকারের মুখাপেক্ষী থাকতে থাকতে অবশেষে এক সড়ক দুর্ঘটনায়… Read More

5 days ago